টাঙ্গাইল জেলা আ. লীগের পুর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদন

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:১৯ পিএম, মঙ্গলবার, ৮ আগস্ট ২০২৩ | ৩২৯

জেলা সম্মেলনের দীর্ঘ ৯ মাস পর টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের ৭৪ সদস্য পুর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদন করেছে কেন্দ্রীয় কমিটি।

এর আগে গত বছরের ৭ নভেম্বর টাঙ্গাইল স্টেডিয়ামে জাকজমকপূর্ণভাবে জেলা আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে একুশে পদক প্রাপ্ত বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুর রহমান ফারুককে সভাপতি ও অ্যাডভোকেট জোয়াহেরুল ইসলাম (ভিপি জোয়াহের) এমপিকে সাধারণ সম্পাদক ঘোষণা করা হয়।

এরপর থেকে বিগত ৯ মাস দলের সাংগঠনিক কর্মকান্ড আওয়ামী লীগের দুই সদস্য বিশিষ্ট কমিটির নেতৃত্বে পরিচালিত হয়েছে।

দলটির সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে দলের সোমবার (৭ আগষ্ট ) সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটির অনুমোদন দেন।

দীর্ঘদিন অপেক্ষার পর জেলা আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদিত হওয়ায় নেতাকর্মীরা উচ্ছ্বসিত ও আনন্দিত।

অনুমোদিত পূর্ণাঙ্গ কমিটির অন্যরা হলেন, সহ-সভাপতি- বীর মুক্তিযোদ্ধা শামসুল হক মিয়া, বীর মুক্তিযোদ্ধা খন্দকার আশরাফুজ্জামান স্মৃতি, বীর মুক্তিযোদ্ধা আনিসুর রহমান আনিস, ছানোয়ার হোসেন এমপি, ডা. কামরুল হাসান খান, নাহার আহমদ, শাহজাহান আনসারী, কুদরত-ই-এলাহি খান, বাপ্পু সিদ্দিকী, তারেক শামস্ খান হিমু, ইনসাফ আলী ওসমানী। যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সুভাষ চন্দ্র সাহা, তানভীর হাসান ছোট মনির এমপি, মির্জা মঈনুল হোসেন লিন্টু। আইন বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট এস. আকবর খান, কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক- আবু নাসের, তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক সোলায়মান হাসান, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক নাজমুল হুদা নবীন, দপ্তর সম্পাদক খোরশেদ আলম এডভোকেট, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রউফ মিয়া (চান মিয়া), প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক সৈয়দ মাহমুদ তারেক পুলু, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট বদিউজ্জামান ফারুক,বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক রেজাউর রহমান চঞ্চল, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক শামীমা আক্তার, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা খন্দকার আনোয়ার হোসেন, যুব ও ক্রীড়া সম্পাদক এহসানুল ইসলাম আজাদ (সর্দার আজাদ), শিক্ষা ও মানব সম্পদ বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট মহসীন শিকদার, শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক আহসানুল ইসলাম টিটু এমপি। শ্রম বিষয়ক সম্পাদক ওয়াজির হাসান খান শরীফ হাজারী, সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক এলেন মল্লিক, স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক আ.ন.ম বজলুর রহিম রিপন। সাংগঠনিক সম্পাদক জামিলুর রহমান মিরন, সাইফুজ্জামান খান সোহেল, খান আহমেদ শুভ এমপি। উপ-দপ্তর সম্পাদক অধ্যক্ষ আনন্দ মোহন দে, উপ-প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক এড. আব্দুর রহিম, কোষাধ্যক্ষ- বাহারুল ইসলাম মিন্টু। সদস্যবৃন্দ ৩৫ জন এরা হলেন আতাউর রহমান খান এমপি, এড. মামুনুর রশিদ, সোহরাব আলী খান আরজু, মনোয়ারা বেগম, হাসান ইমাম খান সোহেল হাজারী এমপি, খন্দকার মমতা হেনা লাভলী এমপি, মাহবুব আলম মল্লিক, আবু হানিফ আজাদ, সিরাজুল হক আলমগীর, এড. শহীদুল ইসলাম, খন্দকার মসিউজ্জামান রুমেল, আকরাম হোসেন কিসলু, এড. শামীমুল আক্তার, আমিরুল ইসলাম খান, আব্দুল গফুর মন্টু, কুতুব উদ্দিন, মাহমুদুল হাসান মারুফ, হারুনার রশীদ হীরা, ডা. মির্জা নাহিদা হোসেন বন্যা, আনিসুল মান্নান শাহেদ, ইঞ্জিনিয়ার আতাউল মাহমুদ, ডা. মীর ফরহাদুল আলম মনি, খালিদ হোসেন খান পাপ্পু, ড. মেজর (অব.) খন্দকার আব্দুল হাফিজ, মাহমুদুর রহমান তালুকদার আজাদ, সাখাওয়াত হোসেন, ইয়াকুব আলী, জেবুন্নেছা চায়না, ডা. জাকিয়া ইসলাম, আবুল কালাম আজাদ সিদ্দিকী (মঈন সিদ্দিকী), সুজয় দেব, এড. মাসুদুল হাসান, রাফিউর রহমান ইউছুফ জাই, আমিনুল ইসলাম তালুকদার বিদ্যুৎ।